জীবাশ্ম ও জীবাশ্ম পানি | Fossil & Fossil Water

জীবাশ্ম [Fossil] বলতে সাধারণত শিলাস্তরে সংরক্ষিত উদ্ভিদ ও প্রাণীর প্রস্তরীভূত (petrified) দেহাবশেষকে বুঝায়। অর্থাৎ বিভিন্ন ভূ-তাত্ত্বিক যুগের উদ্ভিদ ও প্রাণীর দেহাবশেষ শিলা স্তরে প্রস্তরীভূত অবস্থায় দীর্ঘ দিন সংরক্ষিত অবস্থায় থাকতে দেখা যায়। শিলাস্তরের এসব প্রস্তরীভূত দেহাবশেষই মূলত: জীবাশ্ম। আরও বলা যায় যে, ইংরেজি ফসিল (fossil) শব্দের বাংলা প্রতিশব্দ হল জীবাশ্ম। ইংরেজি fossil শব্দটি ল্যাটিন শব্দ fortere থেকে এসেছে। যার অর্থ হল ‘মাটি খুঁড়ে বের করা’। অর্থাৎ মাটির গভীরে হারিয়ে যাওয়া বিলুপ্ত ইতিহাস উদ্ধার করা। সুতরাং জীবাশ্ম বলতে ভূত্বকের গভীর অভ্যন্তরভাগে কিংবা শিলাস্তরে প্রাকৃতিকভাবে সংরক্ষিত উদ্ভিদ ও প্রাণীর প্রস্তরীভূত দেহাবশেষের কঙ্কাল বা কঙ্কালের ছাপকে বুঝায়। 

Skeleton fossil record of ancient reptiles in stone.
জীবাষ্ম, image: britannica.com

জীবাশ্ম পানি [Fossil Water] বলতে সাধারণত পাললিক শিলা স্তরে স্বাভাবিকভাবে সঞ্চিত জল বা পানিরাশিকে বুঝায়। অর্থাৎ স্বাভাবিক বা সহজাত প্রক্রিয়ায় ভূ-অভ্যন্তরের পাললিক শিলা স্তরে জল বা পানি সঞ্চিত হয়। প্রকৃতপক্ষে হ্রদ, নদ-নদী এবং সমুদ্রের তলদেশে পাললিক শিলা গঠনকালে সহজাত বা স্বাভাবিক প্রক্রিয়ায় পাললিক শিলা স্তরে সীমিত পরিমাণে জল বা পানি রয়ে যায়। শিলা স্তরের তরল পেট্রোলিয়ামের (petroleum) সাথে সহজাতভাবে এ পানি অবস্থান করে। সহজাতভাবে ভূ-অভ্যন্তরে এ পানি অবস্থান করে বলে এ ধরনের পানিকে সহজাত পানিও (connate water) বলা হয়। [মো: শাহীন আলম]


Reference:
১. Fossils
২. বাকী, আবদুল, ভুবনকোষ, ২০১৩, সুজনেষু প্রকাশনী, ঢাকা, পৃষ্ঠা ১১০।


 

Add a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *